পর্ণোগ্রাফি

ডিজিটাল নিরাপত্তা ও পর্ণোগ্রাফি নিয়ন্ত্রণ আইনে আটক এক

অজানা রহস্য তথ্যপ্রযুক্তি বাংলাদেশ
তাজিন জামান(ছদ্মনাম) সম্প্রতি পারিবারিকভাবে বিয়ে করেছেন। অতীতে তার একটি ছেলের সাথে প্রেমের সম্পর্ক ছিলো, ছেলেটির একরোখা স্বভাব, বদমেজাজ ও স্বেচ্ছাচারী জীবনযাপনের কারনে তার সাথে সম্পর্ক ছিন্ন করতে বাধ্য হয় বলে বর্তমান স্বামীকে বিয়ের পূর্বেই জানায়। সবকিছু জেনে বর্তমান স্বামী বিয়ে করতে রাজী হলে স্বল্প সময়ের মাঝেই তাদের বিবাহ সম্পন্ন হয়।

 

কিন্তু বিয়ের চারদিন পার হতে না হতেই একটি ফেইক আইডি থেকে তাজিনের ব্যাক্তিগত ছবি ও প্রাক্তন প্রেমিকের সাথে বাহিরে ঘুরতে যাওয়ার ছবি তার স্বামী সহ শ্বশুর বাড়ির লোকজনদের কাছে পাঠাতে থাকে। নতুন সংসারে বিপাকে পড়ে যায় তাজিন, বুঝতে বাকি থাকেনা এসব কে করছে। এদিকে সেই প্রাক্তন প্রেমিক কাউসার হোসেন তাজিনকে কল করে হুমকি দিতে থাকে যেনো স্বামীকে ডিভোর্স দিয়ে তার কাছে চলে আসে। অনবরত কল দিয়ে মানসিক চাপ বাড়াতে থাকে আর তার কথার অবাধ্য হলে তাজিনের ব্যাক্তিগত ছবি তার শ্বশুর বাড়ির আত্নীয়দের মাঝে ছড়িয়ে দেয়ার হুমকি দিতে থাকে।

 

অগত্যা বাধ্য হয়ে তাজিন ও তার স্বামী যোগাযোগ করেন পুলিশ সাইবার সাপোর্ট ফর উইমেন টিমের সাথে। ইতিমধ্যে কাওসারের ক্রমাগত চাপে তাজিনকে চলে আসতে হয় বাবার বাসায়। পুলিশ সাইবার সাপোর্ট ফর উইমেন টিম তাজিনের অভিযোগ বিবেচনায় নিয়ে দ্রুততার সাথে অপরাধী সনাক্তে তৎপর হয়। সনাক্তকরণ শেষে পুলিশের একটি গোয়েন্দা দল ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন ও পর্ণোগ্রাফি নিয়ন্ত্রণ আইনে ডিএমপি পল্টন থানায় ১৯/০১/২০২১ তারিখে দায়েরকৃত ৪৫ নং মামলার রেফা‌রে‌ন্সে অভিযুক্ত মোঃ কাওসার হো‌সেনকে (২৬) মিরপুর পল্লবী এলাকা থেকে আটক করে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.