মতিঝিলের

প্রায় বিলীন মতিঝিলের সেই বিশাল ঝিলটি

অজানা রহস্য দিনকাল বাংলাদেশ
যে ঝিল থেকে মতিঝিলের নাম হয়েছে, সময়ের বিবর্তনে আজ তা হারিয়ে যাচ্ছে, দিন দিন ছোট হয়ে আসছে ঝিলের পরিধি।
বাংলাদেশ ব্যাঙ্কের পেছনের এই ঝিলটিতে সরেজমিনে দেখা যায়, এখনও নৌকাযোগে অনেক মানুষই যাতায়াত করছে।
প্রতিদিন নৌকাযোগে ঝিল পারাপার হন সুমন মিয়া। তিনি বলেন, “এদিক দিয়ে যেতে সুবিধা হয়। মতিঝিল দিয়ে গেলে ৪০ মিনিট সময় লাগে।”

 

স্থানীয় বাসিন্দা খোকন বলেন, “মতিঝিলের ঝিলটা মতিঝিলের জন্ম থেকেই। ঝিলের মধ্যে আবর্জনা ফেলে ফেলে নষ্ট করা হয়েছে।” রহমান নামের স্থানীয় আরেক বাসিন্দা বলেন, “ঝিলটা আগে বহুত বড় ছিল। এখন ঝিলটা ছোট হয়ে গেছে গা।জায়গায় জায়গায় বিল্ডিং হয়ে গেছে গা।” ঝিলের এই সামান্য অংশে নৌকা চালিয়ে জীবিকা নির্বাহ করেন মাঝি রফিক মিয়া। তিনি বলেন, “নৌকা চালিয়ে সংসার চালাই। অন্যকাজও করি। তবে মূল কাজ এটাই।”

 

ঝিলের অবশিষ্ট অংশ বাঁচিয়ে রাখার পরবর্তী পদক্ষেপ সম্পর্কে স্থানীয় কাউন্সিলর মো. সুলতান মিয়া বলেন, “ ভূমিদস্যুদের কারণে ঝিল জবর দখল হয়েছে। এছাড়া সরকারের কালভার্ট তৈরির কারণেও ঝিল ছোট হয়ে আসছে। তবে এই ঝিল নিয়ে মহামান্য হাইকোর্ট থেকে পার্মানেন্ট ইংজাশন নিয়ে আছেন ঝিলদাবী কতিপয় ব্যক্তিবর্গ !
“এই ঝিলকে হাতির ঝিলের মতো করার পরিকল্পনা আছে।”
সুত্রঃ একটি ডেইলি স্টার এবং লিখা নেট থেকে ।

Leave a Reply

Your email address will not be published.